কি বিশেষ ফিচার আছে ওয়ালটনের নতুন জেডএক্স-থ্রি-তে

0

শাহজালাল রোহান, টেকজুম ডটটিভি// দীর্ঘস্থায়ী লি-পলিমার ব্যাটারি ও সেলফিতে অত্যাধুনিক প্রযুক্তি নিয়ে বাংলাদেশীদের জন্য উপযুক্ত প্রিমিয়াম স্মার্টফোন এনেছে দেশীয় ব্র্যান্ড ওয়ালটন । ফোনটির মডেল ‘ওয়ালটন জেডএক্স-থ্রি’ । ফোনটির বিশেষত্ব হলো কম আলোতেও ঝকঝকে সেলফি তুলতে সক্ষম এবং ফোরজি সিম ব্যবহার করা যাবে এই হ্যান্ডসেটটিতে। ৪ হাজার ৫৫০ মিলিঅ্যাম্পিয়ারের লিথিয়াম পলিমার ব্যাটারি দীর্ঘক্ষণ পাওয়ার ব্যাকআপ দেবে। যা ১৮ ওয়াট আল্ট্রা ফাস্ট চার্জিং প্রযুক্তি থাকায় খুব কম সময়ে পূর্ণ চার্জ হবে।

অ্যান্ড্রয়েড নূগাট ৭.০ অপারেটিং সিস্টেমে পরিচালিত। ফোনের তথ্য সুরক্ষায় রয়েছে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর। আঙ্গুলের ছোঁয়ায় মাত্র ০.২ সেকেন্ডেই ফোনটি আনলক করা যাবে। অনলাইন কেনাকাটা বা অ্যাপ এক্সেসেও ফিঙ্গারপ্রিন্ট কাজ করবে। ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর হিসেবে পাঁচ আঙ্গুলের ব্যবহার করা যাবে।

ফোনটির আদ্যোপান্ত নিয়ে আজ কথা বলবো আমরা। টেকজুমের পাঠকদের জন্য তুলে ধরা হলো;

ডিসপ্লেঃ
নতুন এই ‘জেডএক্স-থ্রি’ স্মার্টফোনে রয়েছে ৬ ইঞ্চির আইপিএস প্রযুক্তির ফুল এইচডি ডিসপ্লে। ফলে বিভিন্ন অ্যাপ্লিকেশন ব্যবহার এবং ভিডিও দেখা, গেম খেলা, বই পড়া বা ইন্টারনেট ব্রাউজিং করা যায় খুব সহজে। এছাড়াও ২.৫ডি কার্ভড গ্লাস ডিসপ্লে প্যানেল স্ক্রিন। যা দ্রুত টাচে কাজ করে। ফোনটিতে কোন দাগ থেকে ডিসপ্লের সুরক্ষায় রয়েছে হাই প্রোটেকটিভ স্ক্র্যাচ প্রুভ গ্লাস।

নিরাপত্তায় ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর:
নতুন এ ফোনটির খুব সহজেই সুরক্ষা কর যাবে। এই ফোনের তথ্য সুরক্ষায় রয়েছে আধুনিক ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর। যা আঙ্গুলের ছোঁয়ায় মাত্র ০.২ সেকেন্ডেই আনলক করা যাবে। অনলাইন কেনাকাটা বা অ্যাপ এক্সেসেও ফিঙ্গারপ্রিন্ট কাজ করবে। ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর হিসেবে পাঁচ আঙ্গুলের ব্যবহার করা যাবে।

ডিজাইনঃ
এটির নকশায়ও পরিবর্তন আনা হয়েছে । দেখতে যথেষ্ট স্টাইলিশ। সেটটির ডান দিকে পাওয়ার ভলিউম বাটম রয়েছে যা অনেক যা অনেক স্বাচ্ছন্দেই ব্যবহার করা যায়। সেটটির নিচের দিকে হোম বাটন সেন্সর রয়েছে। এছাড়াও ওয়ালটন ব্র্যান্ডের মোবাইলগুলোর পিছন দিকে বড় আকৃতির লোগো আছে।

হার্ডওয়্যারঃ
ফ্ল্যাগশিপ ফোনটির উচ্চগতি নিশ্চিত করতে রয়েছে ৬৪-বিট সম্পন্ন ২.৫ গিগাহার্জ গতির কর্টেক্স-এ৫৩ অক্টাকোর প্রসেসর। উন্নতমানের গেমিং ও স্পষ্ট ভিডিওর অভিজ্ঞতা দিতে গ্রাফিক্স হিসেবে ব্যবহৃত হয়েছে মালি-টি ৮৮০। রয়েছে থ্রিডি সারাউন্ড সাউন্ড প্রযুক্তি। যাতে মিউজিক হবে আরো সুরেলা ও জীবন্ত। ফোনটির র‌্যাম ৪জিবি। ইন্টারনাল মেমোরি ৬৪ জিবি। যা মাইক্রো এসডি কার্ডের মাধ্যমে ২৫৬ গিগাবাইট পর্যন্ত বাড়ানো যাবে। ফলে অনেক বেশি ছবি, ভিডিও, ডকুমেন্টস ইত্যাদি সংরক্ষণ করা যাবে। ব্যবহারকারীরা হার্ডওয়ারের দিক থেকে অনেকটা সন্তুষ্ট থাকতে পারেন বলে মনে হয়েছে।

ক্যামেরাঃ
ক্যামেরার উপর ফোকাস দিয়েই মূলত তৈরি করা হয়েছে নতুন জেডএক্স-থ্রিকে। কোম্পানি অফিসিয়ালি নাম দিয়েছে ওয়ালটনের ‘সেলফি কিং’। প্রথম দেশীয় ব্র্যান্ড হিসেবে ২০ মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট ক্যামেরার এই স্মার্টফোন আনলো তারা । এফ ২.০ অ্যাপারচার সাইজের এই ক্যামেরায় ব্যবহৃত হয়েছে ৪ সেলের লাইট সেন্সর প্রযুক্তি। ফলে যে কোনো পরিবেশ ও আলোতে তোলা যাবে নিখুঁত সেলফি। এর পি.ডি.এ.এফ প্রযুক্তি ০.১ সেকেন্ডেই স্বয়ংক্রিয়ভাবে ক্যামেরার ফোকাস সেট করবে। রয়েছে ‘বোকেহ সেলফি মোড’। যার মাধ্যমে সাবজেক্টকে ফোকাস করে আশেপাশের সবকিছুকে ব্লার করে সেলফি তোলা যাবে।

এই ফোনের পেছনে রয়েছে ডুয়াল ক্যামেরা। যার একটিতে আছে ১৩ মেগাপিক্সেল, অন্যটিতে ৫ মেগাপিক্সেল লেন্স। মেইন ক্যামেরা ধারণ করবে ছবির ডিটেইলস। আর সেকেন্ডারি ক্যামেরা ধারণ করবে ছবির ডেপথ-অব-ফিল্ড। যাকে বলা হয় ‘পোর্টরেইট মোড’। ফলে ছবিতে ডিএসএলআর-এর মতো প্রফেশনাল ব্যাকগ্রাউন্ড ইফেক্ট পাওয়া যাবে। ক্যামেরায় নরমাল মোড ছাড়াও ফেস বিউটি, এইচডিআর, টাইম ল্যাপস, স্লো মোশন, প্যানোরামা, স্মার্ট সিন, নাইট মোড এবং জিফের মতো আকর্ষণীয় মোডে ছবি তোলার সুযোগ থাকছে। ফ্রন্ট কিংবা রিয়ার – উভয় ক্যামেরায় ফুল এইচডি ভিডিও ধারণ করা যাবে।

ব্যাটারিঃ
জেডএক্স-থ্রি’র অন্যতম ফিচার এর শক্তিশালী ব্যাটারি। ৪ হাজার ৫৫০ মিলিঅ্যাম্পিয়ারের লিথিয়াম পলিমার ব্যাটারি দীর্ঘক্ষণ পাওয়ার ব্যাকআপ দেবে। ১৮ ওয়াট আল্ট্রা ফাস্ট চার্জিং প্রযুক্তি থাকায় খুব কম সময়ে পূর্ণ চার্জ হবে।

কানেক্টিটিভিটি ও টুকিটাকিঃ
আল্ট্রা ফাস্ট চার্জিং, ইন্টিগ্রেটেড পাওয়ার সেভিং মোড, মাল্টি উইন্ডো, থ্রিডি সারাউন্ড সাউন্ড ফোনটিতে ব্যতিক্রম করেছে। ফোননটিতে ব্লুটুথ, ওয়াইফাই ও জিপিএস সুবিধা রয়েছে। এছাড়াও বাম দিকে একটি ডুয়াল সিম স্লট রয়েছে। সেটটির নীচের দিকে একটি মাইক্রো ইউএসবি পোর্ট ও স্পিকারের নেট রয়েছে। পিছনের ক্যামেরার পাশে ডান দিকে একটি চারকোনা এলইডি ফ্ল্যাশ লাইট ব্যাবহার করা হয়েছে।

ওয়ারেন্টিঃ
দেশের সকল ওয়ালটন প্লাজা ও ব্র্যান্ড আউটলেটে ০% ইন্টারেস্টে ৬ মাসের ইএমআই সুবিধায় কেনা যাচ্ছে এই ‘সেলফি কিং’সহ ওয়ালটনের যেকোনো মডেলের স্মার্টফোন। রয়েছে ১২ মাসের কিস্তি সুবিধাও। ফোনটিতে ১ বছরের বিক্রোয়ত্ত সেবা দেবে ওয়ালটন।

মূল্যঃ
‘জেডএক্স-থ্রি’ মডেলের এই ফোনটির দাম ধরা হয়েছে ৩৩ হাজার ৯৯০ টাকা।

টেকজুম ডটটিটিভি/৭ অক্টোবর/এসআর

 

 

মন্তব্য করতে লগইন করুন অথবা নিবন্ধন করুন