নিউজ ডেস্ক, টেকজুম ডটটিভি// দিনে দিনে বুদ্ধিমান হয়ে উঠছে রোবট। এরই পথপরিক্রমায় গবেষকরা সম্প্রতি একটি রোবট আবিষ্কার করেছেন যা পথেঘাটে মানুষের ভিড়ে সংঘর্ষ এড়িয়ে চলতে পারবে। এই্ লাইট-ওয়েট রোবটটি থ্রিডি সেন্সর যুক্ত। গবেষকরা বলছেন নতুন প্রযুক্তির এই্ বুদ্ধিমান রোবটটি মানুষ ও যন্ত্রের মধ্যকার সুন্দর সম্পর্ক তৈরি করবে।

আধুনিক ইন্ডাস্ট্রিয়াল রোবটগুলি সাধারণত কয়েক টন ওজনের বিশালা আকৃতির হয় এবং এই কারণে এগুলি কর্মক্ষেত্রের অভ্যন্তরে মানুষের সাথে সংঘর্ষ এড়াতে পারে না এবং কোনো কোনো ক্ষেত্রে তার চারপাশের মানুষ এবং উৎপাদনপ্রক্রিয়ার ক্ষতির কারণ হয়। এগুলির অপূর্ণতা হলো এগুলি স্থির এবং উৎপাদন ক্ষেত্রে মানব অপারেটরের নির্দেশনা অনুযায়ী একই ধরনের কাজ করে অভ্যস্ত।

শিল্প বিশেষজ্ঞদের মতে, ”যদি আমরা ইন্ডাস্ট্রিয়াল রোবটিক আর্মগুলির সাথে কর্মক্ষেত্রে মানুষের সংঘর্ষের বিষয়টা বাদ দিতে পারি তবে রোবটের আবেদন আরও বৃদ্ধি পাবে এবং শিল্পে রোবটের অবদান আরও গ্রহণযোগ্যতা পাবে।”

নতুন উদ্ভাবিত এই রোবটগুলি হালকা ওজনের হবে এবং এর রোবটিক আর্মগুলি আরও নিখুঁত হবে যা উৎপাদন প্রক্রিয়ার সাথে সুন্দর সমন্বয় ঘটাতে পারবে।

নরওয়ে ইনস্টিটিউট অব টেকনোলজির (NTH) একটি সেমিনারে দি ফাউন্ডেশন ফর সায়েন্টিফিক অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিয়াল রিসার্চ (SINTEF) এর গবেষক ম্যারিনি বেকেন বলেছেন, ”এই নতুন আবিষ্কৃত রোবটগুলি পূর্বের মডেলগুলির চাইতে অনেক বেশি হালকা। তারা প্রচুর কাজ করতে পারবে এবং কোনো অস্বাভাকিতা দেখলেই স্বয়ংক্রিয়ভাবে কাজ বন্ধ করে দেবে।”

SEAMLESS নামের চারবছর মেয়াদি একটা প্রজেক্টের গবেষণার ফল এই রোবট। এই প্রজেক্টে গবেষকরা রোবটের সাথে থ্রিডি সেন্সর যুক্ত করার প্রযুক্তি উদ্ভাবন করেছেন। ম্যারিনি বেকেনের ভাষ্য অনুযায়ী, ”এই থ্রিডি সেন্সর দ্বারা রোবটটি তার চারপাশের বস্তুগুলিকে চিহ্নিত করতে পারবে, দূরত্ব নির্ণয় করতে পারবে এবং তাকে কিছু দেওয়া হলে সে এটা বুঝতে পারবে”।

এটি ক্রমাগত তার চারপাশের বস্তু সম্পর্কে তথ্য সংগ্রহ করতে পারে এবং সেগুলি তাৎক্ষণিক বিশ্লেষণের মাধ্যমে সে চলাফেরা করতে পারে। রোবটির কার্যক্রম একটি কম্পিউটার নিয়ন্ত্রিত থাকবে। রোবট তার সেন্সরের সাহায্যে প্রয়োজনীয় ডেটা কম্পিউটারে প্রেরণ করবে এবং কম্পিউটার সেগুলি বিশ্লেষণ করে রোবটকে নির্দেশনা দেবে। আর এ সবকিছুই ঘটবে তাৎক্ষণিকভাবে।

মন্তব্য করতে লগইন করুন অথবা নিবন্ধন করুন