৯ জানুয়ারি লাস ভেগাসে বসছে প্রযুক্তি বিশ্বের অন্যতম মহাউৎসব

0

নিউজ ডেস্ক, টেকজুম ডটটিভি//  বছর ঘুরে এলো আরেকটি নতুন বছর। নতুন বছরজুড়ে প্রযুক্তি নির্মাতা জায়ান্টরা কিভাবে মাতাবে প্রযুক্তি দুনিয়াকে সেই ধারণা যে উৎসবে পাওয়া যায় তার নাম কনজ্যুমার ইলেক্ট্রনিক শো-২০১৮ (সিইএস)।

প্রযুক্তি নির্মাতা প্রতিষ্ঠানগুলো কি ধরণের পণ্য আনতে পারে এই প্রশ্নের উত্তর দিতেই আগামীকাল মঙ্গলবার  যুক্তরাষ্ট্রের লাস ভেগাসে শুরু হচ্ছে প্রযুক্তি বিশ্বের অন্যতম মহাউৎসব সিইএস ২০১৮। ইলেকট্রনিকস পণ্যের সবচেয়ে বড় প্রদর্শনী কনজিউমার ইলেকট্রনিকস শো-২০১৮ (সিইএস) শেষ হবে ১২ জানুয়ারি।

প্রতিবারের মতো এবারো বিশ্বের শীর্ষস্থানীয় প্রযুক্তিপণ্য নির্মাতারা তাদের সর্বশেষ উদ্ভাবিত নতুন সব প্রযুক্তি ও ডিভাইস নিয়ে হাজির হয়েছে। এবারের সিইএস ২০১৮ এ মাতানোর প্রস্তুতি নিচ্ছে বিশ্বের সব প্রযুক্তি নির্মাতা প্রতিষ্ঠানগুলো।

চার দিনব্যাপী এই আয়োজনে বছরের সেরাটা নিয়েই হাজির হবে প্রতিষ্ঠানগুলো। এতে প্রযুক্তি-পণ্য নির্মাতারা সর্বাধুনিক প্রযুক্তির গাড়ি, স্মার্টফোন, ট্যাবলেট, কম্পিউটার, ক্যামেরা, টেলিভিশনসহ বিভিন্ন পণ্য উন্মোচন করা হবে।আর নিত্য নতুন ফিচার সমৃদ্ধ এসব প্রযুক্তি সম্পর্কে জানতে মুখিয়ে রয়েছেন প্রযুক্তি-প্রেমীরা। যুক্তরাষ্ট্রের লাস ভেগাসে শুরু হতে যাওয়া সিইএসে কি কি প্রযুক্তি-পণ্য চমক জাগাবে তা নিয়েই এই প্রতিবেদন।

৫জি
বিশ্বব্যাপী সেলফোন অপারেটরদের মধ্যে পঞ্চম প্রজন্মের নেটওয়ার্ক প্রযুক্তি ফাইভজি উন্নয়ন ও বাণিজ্যিক ব্যবহার শুরুর লক্ষ্যে এক ধরনের প্রতিদ্বন্দ্বিতা শুরু হয়েছে। বাস্তবে চলতি বছর ফাইভজি নেটওয়ার্ক প্রযুক্তি গ্রাহক পর্যায়ে পৌঁছবে না। তবে কনজিউমার ইলেকট্রনিকস শোতে ফাইভজি প্রযুক্তি বিশেষ গুরুত্ব পাবে। চিপ নির্মাতা ইন্টেল থেকে শুরু করে কোয়ালকম ও চীনের বাইদুসহ অন্য প্রযুক্তিপণ্য নির্মাতারা ফাইভজি প্রযুক্তিপণ্য প্রদর্শন করবে।

স্বচালিত গাড়ি
বৈশ্বিক প্রযুক্তি জায়ান্ট গুগল ও অ্যাপলের পাশাপাশি ইন্টেল ও কোয়ালকমের মতো প্রতিষ্ঠানগুলো স্বচালিত গাড়ি প্রযুক্তি উন্নয়নে কাজ করছে। বেশকিছু প্রতিষ্ঠান এরই মধ্যে স্বচালিত গাড়ি প্রযুক্তি নিয়ে প্রচলিত রাস্তায় পরীক্ষা শুরু করেছে। এসব প্রতিষ্ঠানের পাশাপাশি মার্সিডিজ বেঞ্চ, টয়োটা, ফোর্ড ও অন্যান্য গাড়ি নির্মাতা চলতি বছর স্বচালিত গাড়ি প্রযুক্তি প্রদর্শন করবে।

স্মার্টহোম
সিইএস-২০১৮তে স্মার্টহোম ডিভাইস বিশেষ দৃষ্টি কাড়বে। অ্যামাজনের ডিজিটাল অ্যাসিস্ট্যান্ট অ্যালেক্সা ও গুগল হোমের মতো প্রযুক্তিপণ্যগুলো এখনো অনেকের কাছে নতুন। এসব ডিভাইসের পাশাপাশি চলতি বছর কনজিউমার ইলেকট্রনিকস শোতে ইন্টারনেট সংযুক্ত রিফ্রিজারেটর, স্পিকার ও নিরাপত্তা ক্যামেরা এবং ডিভাইসগুলোর কার্যকারিতা সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য উপস্থাপিত হবে।

ডিজিটাল হেলথ প্রযুক্তি
বৈশ্বিক প্রযুক্তি জায়ান্টরা এখন ডিজিটাল হেলথ প্রযুক্তি খাতে ব্যবসা জোরদারে গুরুত্ব দিচ্ছে। সংশ্লিষ্ট খাতে ব্যবসা সম্প্রসারণে এরই মধ্যে বেশকিছু প্রতিষ্ঠান পৃথক বিভাগ খুলেছে। চলতি বছর সিইএস প্রদর্শনীতে একাধিক প্রতিষ্ঠান তাদের ডিজিটাল হেলথ প্রযুক্তি প্রদর্শন করবে। হেলথ প্রযুক্তি খাতে অ্যাপল এরই মধ্যে জবোন ও ফিটবিটকে পেছনে ফেলেছে।

ওয়্যারলেস হেডফোন
তার যুক্ত হেডফোনের দিন ক্রমে শেষ হয়ে আসছে। অ্যাপলের ওয়্যারলেস হেডফোন এয়ারপড এরই মধ্যে আলোড়ন তুলেছে। প্রতিটি প্রযুক্তিপণ্য নির্মাতাই এখন ওয়্যারলেস হেডফোন আনতে গুরুত্ব দিচ্ছে। গত বছর ছিল ওয়্যারলেস হেডফোন উদ্ভাবনের গুরুত্বপূর্ণ বছর। গুগলও এরই মধ্যে এয়ারপড সদৃশ্য হেডফোন এয়ারবাড উন্মোচন করেছে। সিইএস-২০১৮তে ওয়্যারলেস হেডফোন নজর কাড়বে বলে মনে করা হচ্ছে।

অগমেন্টেড রিয়েলিটি

ভার্চুয়াল রিয়েলিটিকে পেছনে ফেলবে অগমেন্টেড রিয়েলিটি (এআর)। সংশ্লিষ্ট প্রযুক্তি খাতে আধিপত্য বিস্তারে এরই মধ্যে অগমেন্টেড রিয়েলিটি বা এআরকিট নামে একটি প্লাটফর্ম চালু করেছে মার্কিন প্রযুক্তি কোম্পানি অ্যাপল। ক্যামেরা থেকে স্মার্টফোন স্ক্রিন সবকিছুতে অগমেন্টেড রিয়েলিটি প্রযুক্তি যুক্ত করতে কাজ চলছে। অ্যাপল চলতি বছর এআর প্রযুক্তি নিয়ে উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি প্রদর্শন করবে।

থিংকপ্যাড ল্যাপটপ
সিইএস-২০১৮কে সামনে রেখে এরই মধ্যে ইউএসবি টাইপ-সি পাওয়ার অ্যাডাপ্টা-সংবলিত নতুন ল্যাপটপ এনেছে লেনোভো। এবারের প্রদর্শনীতে থিংকপ্যাড এক্স, থিংকপ্যাড টি এবং থিংকপ্যাড এল সিরিজের বেশকিছু নতুন ল্যাপটপ প্রদর্শন করবে চীনভিত্তিক প্রতিষ্ঠানটি। এসব ডিভাইসে অষ্টম প্রজন্মের ইন্টেল কোর প্রসেসর ব্যবহার করা হয়েছে। ডিভাইসগুলো ব্যবসায় কাজে ব্যবহার উপযোগী করে নকশার পাশাপাশি ফিচার সাজানো হয়েছে। এছাড়া থিংকভিশন মনিটর প্রদর্শন করবে প্রতিষ্ঠানটি।

গ্যালাক্সি এক্স
কয়েক বছর ধরেই আলোচনা চলছে ফোল্ডেবল স্মার্টফোন আনছে স্যামসাং। চলতি বছর নমনীয় ডিসপ্লের গ্যালাক্সি এক্স উন্মোচন করতে পারে স্যামসাং। গ্যালাক্সি এক্স নামের এ স্মার্টফোনের ডিসপ্লে বাঁকানো যাবে। এছাড়া অন্যান্য প্রযুক্তিপণ্যের পাশাপাশি কার্ভড মনিটর প্রদর্শন করবে প্রতিষ্ঠানটি।

মাইক্রোএলইডি ডিসপ্লে প্রযুক্তি
বিভিন্ন দিক বিবেচনায় সিইএসকে টেলিভিশন প্রযুক্তি প্রদর্শনের জন্য বিখ্যাত স্থান মনে করা হয়। ১০ বছর আগে অর্গানিক লাইট-এমিটিং ডায়োড (ওএলইডি) ব্র্যান্ড নিউ প্রযুক্তি ছিল। তখন এ ডিসপ্লে প্রযুক্তি আলোচনার মধ্যেই সীমাবদ্ধ থাকলেও এখন স্মার্টফোন ও টিভির পাশাপাশি বিভিন্ন ডিভাইসে ওএলইডি ডিসপ্লে ব্যবহার হচ্ছে। তবে চলতি বছর সিইএস প্রদর্শনীতে মাইক্রোএলইডি ও ৮কে রেজল্যুশন সমর্থিত ডিসপ্লে প্রযুক্তি দৃষ্টি আকর্ষণ করবে।

সিনেট ও ম্যাশেবল অবলম্বনে

মন্তব্য করতে লগইন করুন অথবা নিবন্ধন করুন