ওয়েব ব্রাউজে গুগল ক্রোমের কিছু কৌশল

0

ওয়েবসাইট দেখার সফটওয়্যার বা ব্রাউজার হিসেবে জনপ্রিয়তা পেয়েছে গুগল ক্রোম। দ্রুত গতি আর নানা রকমের সুযোগ-সুবিধা থাকায় ব্যবহারকারীদের কাছে ক্রোমের রয়েছে বাড়তি খাতির। চাইলে বাড়তি কোনো এক্সটেনশন ইনস্টল না করে ক্রোম থেকে আরও কিছু সুবিধা আদায় করা যায়।

ওয়েবপেজের পিডিএফ
গুগল ক্রোমে আগে থেকেই নিজস্ব পিডিএফ রাইটার সুবিধা থাকায় যেকোনো ওয়েবপেজ রাখা যায় পিডিএফ ফাইল আকারে।
এ জন্য Ctrl+P চেপে প্রিন্ট উইন্ডো থেকে প্রিন্টার হিসেবে Save as PDF নির্বাচন করতে হবে।

নির্বাচিত হিস্ট্রি মোছা
গুগল ক্রোমের হিস্ট্রিতে আগে দেখা সব কটি সাইটের ঠিকানা নির্বাচন করার কোনো বোতাম নেই। তবে তালিকার প্রথমটি বাঁয়ের চেকবক্সে টিক দিয়ে কি-বোর্ডের শিফট কি ধরে একেবারে নিচের চেকবক্সটি টিক দিলে সব কটি নির্বাচন করা যাবে। তারপর রিমুভ সিলেক্টেড আইটেম বোতামে ক্লিক করে মুছে দেওয়া যাবে অথবা একটা একটা করেও মোছা যাবে। ব্রাউজারে ওয়েব ঠিকানা লেখার ঘরে chrome://history লিখে এন্টার করে হিস্ট্রিতে ঢোকা যায়।

গতি বাড়ানো
টানা কয়েক ঘণ্টা গুগল ক্রোম ব্যবহার করলে এর গতি কিছুটা ধীর হতে পারে। এ ক্ষেত্রে সহজ সমাধান হলো ব্রাউজারটি বন্ধ করে পুনরায় চালু করা। বাজেভাবে তৈরি কিছু এক্সটেনশনও এর কারণ হতে পারে। এটা জানা যাবে ব্রাউজারের মেনুতে ক্লিক করে Tools>Tasks Manager-এ গিয়ে। ব্রাউজারের টাস্ক ম্যানেজার থেকে বেশি মেমোরি খরচ করছে এমন ওয়েবসাইট বা এক্সটেনশনটি বাছাই করে End Process-এ ক্লিক করুন।

মিডিয়া প্লেয়ার হিসেবে ব্যবহার
যেকোনো অডিও, ভিডিও, ছবি, টেক্সট ফাইল এমনকি পিডিএফ ডকুমেন্টও ডেস্কটপ থেকে মাউসের সাহায্যে টেনে (ড্র্যাগ) ব্রাউজারে ছেড়ে দিয়ে দেখুন, সব ফাইল কাজ করছে। কোনো ধরনের বিশেষায়িত সফটওয়্যার ছাড়াই ভিডিও এবং ছবি দেখুন গুগল ক্রোমে।

অনেক বুকমার্কস একত্রে
ব্রাউজারের বুকমার্কস টুলবারে যদি অনেকগুলো সাইটের তালিকা যুক্ত করতে চান, তাহলে বর্তমানে থাকা যেকোনো বুকমার্কসে ডান ক্লিক করে এডিট নির্বাচন করুন। তারপর সবকিছু মুছে দিয়ে নামের ঘরটি খালি করে দিন। তখন ওয়েবসাইটের শুধু ফেভিকন আইকন টুলবারে দেখা যাবে।

মন্তব্য করতে লগইন করুন অথবা নিবন্ধন করুন