নিজস্ব প্রতিবেদক, টেকজুম ডটটিভি// সাধারন মানুষের জীবনমান উন্নয়নে বর্তমান সরকার কাজ করে যাচ্ছে। প্রযুক্তি শিক্ষায় ও তার সুবিধা সবার হাতে পৌঁছে দিতে দেশব্যাপী বিভিন্ন প্রযুক্তি বিষয়ক আয়োজন করে সরকার ১৬ কোটি মানুষকে ইন্টারনেটের আওতায় আনতে চায় বলে জানিয়েছেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক।

সোমবার ‘বাংলাদেশ ইন্টারনেট উইক ২০১৫’ আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা জানান তিনি।

এদিকে সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, সারাদেশে ইন্টারনেট গ্রাহক বৃদ্ধির লক্ষ্যে বাংলাদেশে প্রথমবারের মতো আয়োজন করা হচ্ছে ‘বাংলাদেশ ইন্টারনেট উইক ২০১৫’। বড় তিনটি এক্সপোসহ বাংলাদেশের ৪৮৭টি উপজেলায় একযোগে পালিত হবে দেশের সর্ববৃহৎ এই ইন্টারনেট উৎসব। এতে দেশের শীর্ষস্থানীয় ই-কমার্স কোম্পানি, মোবাইল অ্যাপস ডেভেলপমেন্ট প্রতিষ্ঠান, ওয়েব পোর্টাল, ডিভাইস কোম্পানিসহ ইন্টারনেট ভিত্তিক পণ্য ও সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান অংশ নেবে।

আরও পড়ুন: ইবুক নিয়ে কাজ করছে আইসিটি বিভাগ: পলক

আগামী ৫ থেকে ১১ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত ৭দিন ব্যাপী এই উৎসব আয়োজন করছে বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব সফটওয়্যার অ্যান্ড ইনফরমেশন সার্ভিসেস (বেসিস), গ্রামীণফোন এবং তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (আইসিটি) বিভাগ।

এদিকে ইন্টারনেটের দাম কমানোর বিষয়ে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে পলক বলেন, সরকার ইন্টারনেট ব্যান্ডউইথের দাম পর্যায়ক্রমে কমিয়ে নিয়ে আসছে। এখন ইন্টারনেট ব্যান্ডউইথের দাম ৬২৫ টাকা ঠিক করা হয়েছে।

Bangladesh Internet Week 2015_techzoom.tv

তিনি বলেন, গত ৬ আগস্ট ডিজিটাল বাংলাদেশ টাস্কফোর্সের সভায় সবার কাছে ইন্টারনেট পৌঁছাতে দাম কমিয়ে আনার নির্দেশ দেন প্রধানমন্ত্রী। শিগগিরই ইন্টারনেটের সাথে যুক্ত সরকারী-বেসরকারি সব স্টেক হোল্ডারদের নিয়ে বসবো। সেখানে ভয়েস কলের মতো ইন্টারনেটের দামও বেধে দেয়ার কথা ভাবা হচ্ছে।

আরও পড়ুন: ই-কমার্সের উন্নয়নে এক সাথে বেসিস ও ই-ক্যাব

বেসিস সভাপতি শামীম আহসানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক। বক্তব্য রাখেন গ্রামীণফোনের প্রধান বিপণন কর্মকর্তা ইয়াসির আজমান। স্বাগত বক্তব্য রাখেন বেসিসের জ্যেষ্ঠ সহ-সভাপতি ও বাংলাদেশ ইন্টারনেট উইক ২০১৫ এর আহ্বায়ক রাসেল টি আহমেদ।

মন্তব্য করতে লগইন করুন অথবা নিবন্ধন করুন