'গ্রামীণফোন বাংলাদেশের সংস্কৃতি এবং ঐতিহ্যের পৃষ্ঠপোষক'

0

নিউজ ডেস্ক, টেকজুম ডটটিভি// শিল্প ও বন্দর নগরী খুলনার তীর ঘেষে বহমান কিংবদন্তি রূপসা নদীতে প্রতিবারের ন্যায় এবারও অনুষ্ঠিত হয়ে গেল নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতা। নগর সামাজিক ও সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের আয়োজনে গ্রামীণফোন লিমিটেড এর সহযোগিতায় এবং খুলনা জেলা প্রশাসনের সার্বিক তত্ত্বাবধানে লক্ষাধিক দর্শনার্থীদের উপস্থিতিতে শনিবার এই ১০ম নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়।

গ্রামীণফোন দ্বিতীয়বারের মতো এই নৌকা বাইচ আয়োজনে সহায়তা দিল। বিচারক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন ম্যাজিস্ট্রেট মশিউর রহমান, নিজামউর রহমান লালু, মোঃ মইনুল হাসান শিমুল, মিনা আজিজুর রহমান, শিকদার আব্দুল খালেক এবং এস কে এম তাছাদুজ্জামান।

অনুষ্ঠানে গ্রামীণফোন কর্মকর্তা বলেন, “গ্রামীণফোন সবসময়ই বাংলাদেশের সংস্কৃতি এবং ঐতিহ্যের পৃষ্ঠপোষক। গ্রামীণফোন মনে করে যে একটি দেশের উন্নয়নে সংস্কৃতি এবং ঐতিহ্যের বিরাট ভূমিকা আছে। বাংলাদেশের উন্নয়নের অংশীদার হিসেবে গ্রামীণফোন তাই সব সময় এ ধরণের অনুষ্ঠানে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়েছে।”

মূল আয়োজক মোল্লা মারুফ রশিদ বলেন “নদী বাঁচলে দেশ বাচবে- এই স্লোগান নিয়ে আমরা দীর্ঘদিন ধরে কাজ করে যাচ্ছি। তাই এর সাথে সম্পৃক্ত আবহমান বাংলার ঐতিহ্য নৌকা বাইচ আমরা আয়োজন করছি আজ ১০ বছর। আমাদের এই আয়োজনে খুলনাবাসীর এই বিপুল সাড়া আমাদের অনুপ্রাণিত করে প্রতিবার।”

এবারের প্রতিযোগিতাটি ছিল এ অঞ্চলের মানুষের আনন্দ উৎসবের অন্যতম মিলন মেলা, ১ নং কাস্টম ঘাটে দুপুর ২.০০ টায় আনুষ্ঠানিক উদ্বোধনের মধ্য দিয়ে বাইচ প্রতিযোগিতা শুরু হয়ে ৫.৩০ মিনিটে শেষ হয়।

এই প্রতিযোগিতায় খুলনা, তেরখাদা, ডুমুরিয়া, নড়াইল, কালিয়া, সাতক্ষীরা, পাইকগাছা, কয়রা, গোপালগঞ্জ, মাদারিপুর , ফরিদপুর থেকে ছাব্বিশ টি নৌকা প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহন করে। বাইচে জেলা প্রশাসন, নৌ-বাহিনী, কোষ্টগার্ড, নৌ-পুলিশ, জেলা পুলিশ, মেট্রো পুলিশ, ফায়ার সার্ভিস, ডুবুরী, সিভিল সার্জন, রোভার স্কাউট,সি স্কাউট, কে.সি.সি, রূপসা সেতু , সড়ক ও জনপথ কর্তৃপক্ষের সমন্বিত প্রচেষ্টায় সুন্দর ও মনোরম পরিবেশে নগর সামাজিক ও সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের সভাপতি মোল্লা মারুফ রশীদের সভাপতিতে এবং মোঃ মনিরুজ্জামান রহিমের পরিচালনায় খান জাহান আলী সতেুর (রূপসা সেতু) নিচে পুরষ্কার বিতরন ও সন্ধ্যায় মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।

ঢাকা থেকে আগত এবং স্থানীয় গ্রামীণফোনের কর্মকর্তাবৃন্দ ছাড়াও নগর সামাজিক ও সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের সহ সম্পাদক মোঃ মনিরুজ্জামান রহিম, প্রধান উপদেষ্টা শেখ আশরাফ উজ জামান; আল জামাল ভুঁইয়া; এস এম আকতার উদ্দিন পান্নু; গোলাম রব্বানি ভুঁইয়া; সালাউদ্দিন সিদ্দিকি হেলাল উপস্থিত ছিলেন।

মন্তব্য করতে লগইন করুন অথবা নিবন্ধন করুন