২০৩০-র মধ্যেই সারা দেশের বিদ্যুৎ জোগাবে চাঁদ

আর মাত্র ১৩ বছর। তার পর একটু নিষ্কৃতি পেতে চলেছে সূর্য। কারণ, বিজ্ঞানীরা এখন হাতে চাঁদ পেয়ে গিয়েছেন! শক্তির জোগানে সূর্যের বিকল্প পথের সন্ধান পেয়েছেন তাঁরা। ১৩ বছর পর থেকে ভারতের যাবতীয় শক্তির জোগান দেবে চাঁদ।

ইসরো সূত্রে খবর, গবেষণার কাজ ঠিকঠাক এগোলে ২০৩০ সালের মধ্যেই শক্তির বিকল্প উৎস হয়ে উঠতে পারে চাঁদ।

অবজারভার রিসার্চ ফাউন্ডেশনের একটি অনুষ্ঠানে ইসরোর গবেষক শিবথানু পিল্লাই এ কথা জানিয়েছেন।

শিবথানু জানান, চাঁদে প্রচুর পরিমাণ হিলিয়াম-৩ রয়েছে। যা পৃথিবীতে থাকা হিলিয়াম-৩-এর থেকে কয়েক হাজার গুণ বেশি। শক্তির উৎস হিসাবে সেই হিলিয়াম-৩ যদি কাজে লাগানো যায়, তা হলে যে পরিমাণ শক্তি পাওয়া যাবে তাতে পুরো পৃথিবীর চাহিদার জোগান দেওয়া যাবে। চাঁদ থেকে শক্তির উৎস খোঁজার এই গবেষণা শুধু ইসরো-ই করছে না।

শিবথানু জানিয়েছেন, বিশ্বের আরও কয়েকটি দেশ এ ধরনের গবেষণা চালাচ্ছে। তবে কী ভাবে সেই হিলিয়ামকে কাজে লাগানো হবে সে বিষয়ে এখনই কিছু স্পষ্ট করেননি তিনি।